1. akmolbangladesh@gmail.com : Press Times :
শিরোনামঃ
‘এম. আই. টেলিভিশন’ এর ৩য় বর্ষপূর্তি উদযাপন পারিবারিক বিরোধ ও হতাশার কারনে পিরোজপুরের নাজিরপুরে ছেলের হাতে মায়ের হত্যা : ছেলে গ্রেপ্তার “আরবি নববর্ষ” মুফতি যুবায়ের আহমাদ পিরোজপুরে খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবীতে বিএনপি’র সমাবেশ  শিক্ষক সমিতি’র পক্ষ থেকে ইন্দুরকানীর নবনির্বাচিত উপজেলা চেয়ারম্যানকে সংবর্ধনা বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের ৭৫ তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী (প্লাটিনাম জয়ন্তী) উপলক্ষে যুবলীগের আয়োজনে বৃক্ষ রোপন  পিরোজপুরের ইন্দুরকানীতে সরকারি গাছ কাটা হলেও ব্যবস্থা নেয়নি বন বিভাগ কতৃপক্ষ পিরোজপুরের ইন্দুরকানীতে সরকারি গাছ কেটে নেওয়ার অভিযোগ আওয়ামীলীগ নেতার বিরুদ্ধে আগামী ১ আগস্ট শুরু হচ্ছে পিরোজপুর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রথম ব্যাচ এর ক্লাশ শুরু নানা আয়োজনের মধ্য দিয়ে পিরোজপুরে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের ৭৫ তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত

শাড়ি কিনে না দেওয়ায় স্বামীর সঙ্গে ঝগড়া, গৃহবধূর গলায় ফাঁস দেওয়া মরদেহ উদ্ধার

  • আপডেট টাইমঃ সোমবার, ১১ অক্টোবর, ২০২১
  • ৯৯ মোট ভিউ

উইমেন ডেস্ক: সোমবার, ১১ অক্টোবর ২০২১, ২৭ আশ্বিন ১৪২৮ |

ঠাকুরগাঁও সদর উপজেলায় শাড়ি কিনে না দেওয়ায় স্বামীর সঙ্গে ঝগড়া করে দিথি রাণী (১৮) নামে এক গৃহবধূ গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছেন বলে খবর পাওয়া গেছে। তবে তাকে হত্যা করে মরদেহ ঝোলানো হয়েছে বলে দাবি স্বজনদের।
সোমবার (১১ অক্টোবর) দিনগত রাতে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে তার মৃত্যু হয়। মৃত দিথি রাণী উপজেলার আউলিয়াপুর ইউনিয়নে নাপিতপাড়া গ্রামের ভমর রায়ের স্ত্রী।
স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, দুই মাস আগে বড় বোনের দেবর রাজমিস্ত্রি ভমর রায়ের সঙ্গে ভালোবেসে বিয়ে হয় দিথি রাণীর। রোববার ভূল্লী বাজারে স্বামীর সঙ্গে কেনাকাটা করতে যান তিনি। এসময় দামি শাড়ি কিনতে চান দিথি। কিন্তু স্বামী শাড়ি কিনে না দেওয়ায় বাসায় গিয়ে তাদের মধ্যে ঝগড়া হয়।বাসার সবাই ঘুমিয়ে পড়লে মধ্যরাতে দিথি শোয়ার ঘরে ফ্যানের সঙ্গে গলায় ওড়না পেঁচিয়ে ফাঁস দেন।

তার স্বামী ঝুলন্ত অবস্থায় দেখতে পেয়ে তাকে উদ্ধার করে ঠাকুরগাঁও সদর হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক রংপুরে রেফার করেন। পরে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে তার মৃত্যু হয়।দিথির বাবা-মায়ের দাবি, তাদের মেয়েকে মেরে ফাঁসিতে ঝুলিয়ে দেওয়া হয়েছে।

ঠাকুরগাঁও সদর হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল কর্মকর্তা ডা. রাকিবুল ইসলাম চয়ন বলেন, আশঙ্কাজনক অবস্থায় ওই গৃহবধূকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছিল। ঘণ্টাখানেক পর অবস্থার অবনতি হলে তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার করা হয়।

ঠাকুরগাঁও সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) তানভীরুল ইসলাম বলেন, গৃহবধূর মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য হাসপাতাল মর্গে পাঠানো রাখা হয়েছে। থানায় একটি অপমৃত্যুর মামলা হয়েছে। তদন্ত প্রতিবেদনের পর আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরোও পড়ুনঃ
© All rights reserved © 2021 | Powered By Uttoron Host
Site Customized By NewsTech.Com