• শনিবার, ২৩ অক্টোবর ২০২১, ০৭:১০ পূর্বাহ্ন
  • [gtranslate]
শিরোনামঃ
পিরোজপুর জেলা দাবা লীগের পুরস্কার বিতরনী অনুষ্ঠিত পিরোজপুর অগ্রণী ব্যাংক লিমিটেড মেইন রোড শাখা কর্তৃক “প্রবাসীর ঘরে ফেরা ঋণ বিতরণ” বঙ্গবন্ধু ও মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ভিত্তিক বই পড়া প্রতিযোগীতা এবং পুরষ্কার বিতরণ অনুষ্ঠিত পিরোজপুর জেলা ছাত্রলীগের উদ্যোগে শিশুদের মৌলিক শিক্ষার উদ্দেশ্যে ” শেখ রাসেল পাঠশালা “উদ্বোধন পিরোজপুর জেলা ছাত্রলীগের উদ্যোগে সাম্প্রদায়িক সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে সম্প্রীতি সমাবেশ ও শান্তি শোভাযাত্রা জাতীয় শুদ্ধাচার কৌশল কর্মপরিকল্পনা বাস্তবায়ন উপলক্ষে সুশাসন প্রতিষ্ঠার নিমিত্তে অংশীজনের অংশ গ্রহন সভা অনুষ্ঠিত পিরোজপুরে সম্প্রীতি সমাবেশ ও শান্তি শোভাযাত্রা অনুষ্ঠিত পিরোজপুরে নানা কর্মসূচীর মধ্য দিয়ে শেখ রাসেল দিবস পালিত পিরোজপুর মেডিকেল এন্ড ডেন্টাল স্টুডেন্ট এসোসিয়েশন এর আয়োজনে শতাধিক রোগীদের ফ্রি মেডিকেল ক্যাম্প পিরোজপুরে শূন্য থেকে সফল উদ্যোক্তা এম এ মুন্না

পিরোজপুরে ইউপি নির্বাচনে বিদ্রোহীদের চাপে কোনঠাসা নৌকার প্রার্থীরা

admin / ১১৫ জন দেখেছেন
প্রকাশের সময়ঃ বুধবার, ১৬ জুন, ২০২১

আসন্ন ২১ জুন অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া প্রথম ধাপের ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে পিরোজপুর সদর উপজেলার সব কয়টি ইউনিয়নে চাপের মুখে পরেছে নৌকা প্রতীকের চেয়ারম্যান প্রার্থীরা। দলীয় বিদ্রোহীদের চাপে কোনঠাসা হয়ে পড়েছে আওয়ামী লীগ মনোনীত নৌকা প্রতীকের প্রার্থীরা। নৌকার প্রতীকের প্রার্থীদের অভিযোগ, আওয়ামী লীগের এক পক্ষ সরাসরি এসব বিদ্রোহীদের পক্ষে মাঠে নেমেছে। এমনকি প্রশাসনিক সহোযোগীতা পাচ্ছে নৌকা বিরোধী এসব বিদ্রোহী প্রার্থীরা। সদর উপজেলা ছাড়া অন্য উপজেলায়ও রয়েছে এমন অভিযোগ।

আগামী ২১ জুন পিরোজপুর সদর উপজেলায় ৪টি টোনা, কদমতলা, শরিকতলা ও কলাখালী ইউনিয়নে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। টোনা ইউনিয়নে নৌকার চেয়ারম্যান প্রার্থী ইমরান আলম খান হারুন ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি। এ ইউনিয়নে বিদ্রোহী হিসেবে আছেন এমডি সোবাহান খান ও আনোয়ার হোসেন। এ দুজনই আওয়ামী লীগের রাজনীতির সাথে জড়িত। কদমতলা ইউনিয়নে নৌকার প্রার্থী হানিফ খান ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক। প্রতিপক্ষ শেখ শিহাব হোসেন স্বেচ্ছাসেবক লীগের প্রভাবশালী নেতা। শারিকতলা ইউনিয়নে নৌকার প্রার্থী আজমির হোসেন মাঝির প্রতিপক্ষ মিরাজুর রহমান রাজু মোল্লা। এছাড়া নাজিরপুর উপজেলায় সদর ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের নৌকা প্রতীকের প্রার্থী উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মোশারেফ হোসেন খান। নির্বাচনে তার প্রধান প্রতিপক্ষ উপজেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক চঞ্চল কান্তি বিশ্বাস।

নৌকা প্রতীকের চেয়ারম্যান প্রার্থীদের অভিযোগ আওয়ামী লীগের এক পক্ষ এবারের নির্বাচনে বিদ্রোহীদের পক্ষে অবস্থান নিয়েছেন। তাদের অনুসারী স্থানীয় যুবলীগ, স্বেচ্ছসেবক লীগ, ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরাও বিদ্রোহীদের পক্ষে কাজ করছে। ফলে সাধারণ ভোটারদের মাঝে এর নেতিবাচক প্রভাব পরছে। এসব বিদ্রোহীদের নিয়ন্ত্রন করতে না পারায় সুবিধা পাবে জামায়াত ও বিএনপি সমর্থিত প্রার্থীরা।

কদমতলা ইউনিয়নের নৌকার প্রার্থী হানিফ খান জানান, তার কোন কর্মী সমর্থক কোথাও নির্বাচনী কার্যক্রম চালাতে পারছে না। যেখানেই তার কর্মীরা ভোট চাইতে যাচ্ছে সেখানেই তার কর্মী সমর্থকদেও উপরে হামলা করা হচ্ছে। দেয়া হচ্ছে হুমকি। প্রতিপক্ষ আনারসের প্রার্থী শেখ শিহাব হোসেন এর লোকজনের হামলার স্বীকার হয়েছেন তিনি অনেকবার। একাধিক মামলাও হয়েছে কিন্ত তারপরেও শেখ শিহাব হোসেন এর লোকজনের চাপের মুখে নৌকার কর্মী ও সমর্থকরা।

একই অভিযোগ করেছেন শারিকতলা ইউনিয়নের নৌকার প্রার্থী আজমীর হোসেন মাঝিও তিনি বলেন বিদ্রহী প্রার্থীর চাপে নৌকার সমর্থকর ও ভোটাররা চাপের মুখে রয়েছে। অনেক জায়গাতেই পুলিশ নিরব ভুমিকা পালন করছে।

এ বিষয়ে পিরোজপুর জেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট এম এ হাকিম হাওলাদার জানান, জেলা আওয়ামীলীগের নেতা কর্মীরা সর্বোচ্চভাবে নৌকা প্রতীকের প্রার্থীদের সাথে কাজ কওে যাচ্ছে। তবে বিদ্রোহীদের বিষয়ে জেলা আওয়ামী লীগ কোন প্রকার সহায়তা করছে না। দলীয় পদধারী যে সকল নেতারা নৌকার বিপক্ষে অবস্থান নিয়েছে তাদের বিরুদ্ধে কোন ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

পিরোজপুর জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি সাবেক সংসদ সদস্য এ কে এম এ আউয়াল জানান, নৌকার বিরুদ্ধে বিদ্রহী প্রার্থী ও তার সমর্থকদের বিগত দিনেও মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা কোন প্রকার ছাড় দেননি এবং ভবিষ্যতেও তাদের কোন প্রকার ছাড় দিবেন বলে মনে হয় না। যারাই নৌকার বিরোধিতা করছে তাদের বিরুদ্ধে আইনানুক ব্যবস্থা নেয়া হবে।

পিরোজপুর সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আ জা মো মাসুদুজ্জামন মিলু জানান, আসন্ন ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে পিরোজপুর সদর উপজেলার আইন শৃঙ্খলা বজায় রাখতে সদর থানা পুলিশ কাজ কওে যাচ্ছে। যেখানেই নির্বাচনকে কেন্দ্র করে ছোট খাট ঝামেলা হচ্ছে সাথে সাথেই সেখানে পুলিশ পাঠানো হচ্ছে। দল মত নির্বেশেষে পুলিশ মাঠে থেকে কাজ করে যাচ্ছে। এর পরেও যদি কেউ আইন ভঙ্গ করতে চায় তার বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে।


একই ধরনের আরও খবর
error: Content is protected !!
error: Content is protected !!