• মঙ্গলবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১২:২৮ পূর্বাহ্ন
  • [gtranslate]
শিরোনামঃ
পিরোজপুরে জেলা তথ্য অফিসের আয়োজনে “এসো মুক্তিযুদ্ধের গল্প শুনি” এবং বঙ্গবন্ধুর জীবন ও কর্ম ভিত্তিক কুইজ প্রতিযোগিতা পিরোজপুরে করোনায় ক্ষতিগ্রস্ত ৩ শত পরিবারকে প্রধানমন্ত্রীর মানবিক সহায়তার টাকা দিলেন ডিসি দুদকের করা পৃথক ২ মামলায় মেয়র দম্পত্তিকে দুদক তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল পর্যন্ত জামিন দিয়েছে আদালত : জনসমূদ্রে পিরোজপুর পিরোজপুরের ইন্দুরকানীতে গৃহবধুকে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগ সবুজ ধারা প্রপার্টিজের বর্ষপূর্তি অনুষ্ঠিত পিরোজপুরের ইন্দুরকানীতে ইউপি সদস্যের বাড়ীতে ডাকাতির মামলায় গ্রেফতার-১ পিরোজপুরের ইন্দুরকানীতে আগুন লেগে ২টি দোকান পুড়ে ছাই ৩০লক্ষ টাকার ক্ষয়ক্ষতি জাতীয় প্রাথমিক সহকারী শিক্ষক ফাউন্ডেশন কাউখালী উপজেলার নবগঠিত কমিটির অনুমোদন পিরোজপুরে মৃত স্বামীর সহায়-সম্পত্তি গ্রাস করার চেষ্টায় প্রতিপক্ষের মারপিট নির্যাতন থেকে রেহাই পেতে স্ত্রীর সংবাদ সম্মেলন পিরোজপুরে বিএনপির ৪৩ তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল

পিরোজপুরে বিদ্রোহী প্রার্থীর দলীয় পদ প্রত্যাহার চেয়ে প্রধানমন্ত্রীর কাছে আওয়ামীলীগ নেতার আবেদন

admin / ৮৫৬৪ জন দেখেছেন
প্রকাশের সময়ঃ শনিবার, ৩ এপ্রিল, ২০২১

পিরোজপুরের নাজিরপুর উপজেলায় দলীয় প্রার্থীর বিরুদ্ধে উপজেলা নির্বাচনে অংশ নেওয়া স্বেচ্ছাসেবকলীগের কেন্দ্রীয় নেতার দলীয় পদ প্রত্যাহার চেয়েছেন শীর্ষস্থানীয় এক আওয়ামীলীগ নেতা। নৌকা প্রতীকের বিরুদ্ধে দোয়াত কলম নিয়ে নির্বাচন করে বহিঃস্কার হওয়া দিপ্তীশ কুমার হালদারের পুনরায় পাওয়া দলীয় পদ বাতিলের জন্য দলীয় সভানেত্রী ও প্রধান মন্ত্রী বরাবর সম্প্রতি আবেদন করেন জেলা আওয়ামীলীগের উপদেষ্টা ও উপজেলা চেয়ারম্যান মাস্টার অমূল্য রঞ্জন হালদার।
জানা যায়, গত নির্বাচনে নাজিরপুর উপজেলা চেয়ারম্যান পদে আওয়ামীলীগের বিদ্রোহী প্রার্থী হিসাবে প্রতিদ্বন্দ্বীতা করে দল থেকে বহিঃস্কার হওয়া দিপ্তীশ কুমার হালদার স্বেচ্ছা সেবক লীগের বর্তমান কেন্দ্রীয় কমিটিতে কার্য নির্বাহী সদস্য হিসাবে পদ পেয়েছে। দলের সভাপতি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে চলতি বছরের ফেব্রুয়ারীতে দেয়া ওই আবেদনের মাধ্যমে জানা গেছে, গত ২০১৯ সালের ৩১ মার্চ জেলার নাজিরপুর উপজেলা পরিষদের নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। নির্বাচনে আওয়ামীলীগের দলীয় মনোনয়ন ও নৌকা প্রতীক নিয়ে নির্বাচিত হন জেলা আওয়ামীলীগের উপদেষ্টা ও উপজেলা চেয়ারম্যান মাস্টার অমূল্য রঞ্জন হালদার। ওই নির্বাচনে আ’লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী হিসাবে দোয়াত কলম প্রতীক নিয়ে প্রতিদ্বন্দ্বীতা করেন দিপ্তীশ কুমার হালদার। সে সময় দলীয় প্রার্থীর বিরুদ্ধে প্রতিদ্বন্দ্বীতা করায় ওই দিপ্তীষ কুমার হালদারকে দল থেকে বহিস্কার করা হয়। ওই আবেদনে আরো উল্লেখ করা হয় বিদ্রোহী প্রার্থী ও বর্তমান কেন্দ্রীয় স্বেচ্ছসেবকলীগ নেতাকে সে সময় বিএনপি-জামায়াতের মদদে দলের মধ্যে বিশৃংখলা সৃষ্টির জন্যে তাকে প্রার্থী করা হয়। এ ব্যাপারে স্বেচ্ছাসেবকলীগ নেতা দিপ্তীষ কুমার হালদার সাংবাদিকদের জানান, আমি নির্বাচন করেছি তাতো মিথ্যা নয়। তিনিতো অভিযোগ দিতেই পারেন।
এ বিষয়ে জেলা আওয়ামীলীগের উপদেষ্টা ও নাজিরপুর উপজেলা চেয়ারম্যান মাস্টার অমূল্য রঞ্জন হালদার জানান, দলের বিদ্রোহী হিসাবে প্রতিদ্বন্দ্বীতা করার অভিযোগে ওই দিপ্তীশ কুমার হালদারকে তখন দল থেকে বহিস্কার করা হয়। পরে স্বেচ্ছা সেবকলীগের কেন্দ্রীয় কমিটিতে স্থান পাওয়ায় সংগঠনের ভাবমূর্তি ক্ষুন্ন হয়েছে। তাই দলের সভাপতি’র কাছে তাকে সংগঠনের পদ থেকে প্রত্যাহার চেয়ে এ আবেদন করেছি। তিনি আরো জানান, নির্বাচনে দিপ্তীশ কুমার হালদারের নেতৃত্বে তখন আমার নির্বাচনী ক্যাম্পে হামলা , অগ্নি সংযোগ ও কর্মীদের মারধর করে আহত করে।


একই ধরনের আরও খবর
error: Content is protected !!
error: Content is protected !!